ঐশ্বরিয়া রায়

গোলাপি ঠোঁটে প্যারিস ফ্যাশন উইক মাতালেন ঐশ্বরিয়া

ফ্যাশন লাইফ স্টাইল

লাইফস্টাইল ডেস্ক »

শুভ্র পোশাকে প্যারিস ফ্যাশন উইক মাতালেন বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী ও প্রাক্তন মিস ওয়ার্ল্ড ঐশ্বরিয়া রায় বচ্চন। একেবারেই ন্যাচারাল লুকে তাকে কতটা অসাধারণ দেখাচ্ছে তা নিশ্চয়ই ছবি দেখেই বুঝেছেন! তবে তার সাজ পোশাকে ভিন্ন মাত্রা এনে দিয়েছে গোলাপি ঠোঁট। সাধারণ সাজেও তিনি যেন অসাধারণ।

সম্প্রতি লরিয়াল ফ্যাশন উইকে যোগ দিতে প্যারিসে গিয়েছেন এই প্রাক্তন বিশ্বসুন্দরী। প্যারিসে পৌঁছানোর পরই ঐশ্বরিয়া তার ইনস্টাগ্রামে বেশ কিছু ছবি শেয়ার করেছেন।

এবারের লরিয়াল ফ্যাশন উইক ভিন্নভাবে আয়োজন করা হয়েছে। আইফেল টাওয়ারের সামনেই মঞ্চ সাজানো হয়েছে। এই ফ্যাশন উইকে উপস্থিত হন হেলেন মিরেন, ক্যাথরিন ল্যাংফোর্ড, অ্যাম্বার হার্ড, ক্যামিলা ক্যাবলোসহ নামকরা সব নারীবাদীরা।

এই ফ্যাশন উইকে হেঁটেছেন বিশ্বের সব নামকরা মডেলরা। আর এই মঞ্চেই শুভ্রতায় সবাইকে মাতিয়েছেন ঐশ্বরিয়া। তার সাদা পোশাক ও গোলাপি ঠোঁট সবার নজর কেড়েছে। যদিও এয়ারপোর্ট থেকেই সবার নজর ছিলো লরিয়ালের ভারতীয় রাষ্ট্রদূত ঐশ্বর্য রায়য়ের দিকেই।

এই ফ্যাশন শো’তে ঐশ্বরিয়া উপস্থিত হন সাদা গাউনে। কুঁচি দেওয়া দুধ সাদা রঙের গাউন পরেছিলেন তিনি। তবে এই গাউনের কাট একেবারে অন্যরকম। পোশাকের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে তার মেকআপও ছিল একেবারেই ন্যাচারাল।

চুলে ব্লো ডাই করে হালকা কার্ল করা। চোখে কালো কাজল আর ঠোঁটে গোলাপি লিপস্টিক। এতেই নজর কেড়েছেন ঐশ্বরিয়া। তার এই লুকটি ছিল সাধারণের মধ্যে অসাধারণ। সবাই তার সাজ পোশাকের প্রশংসা করেছেন।

আপনিও যদি চান ঘরে বসে সহজেই ঐশ্বরিয়ার এই লুকটি করতে পারেন। কীভাবে করবেন জেনে নিন কয়েকটি টিপস-

মুখ ভালো করে পরিষ্কার করে হালকা ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন। এবার প্রাইমার ব্যবহার করুন। তারপর মুখের স্পট আছে যেসব স্থানে সেখানে কনসিলার লাগিয়ে নিন। এবার ভালো করে ব্লেন্ড করে মুখে ফাউন্ডেশন লাগান।

কনট্যুরের দিকে বিশেষ নজর দিন। ফাউন্ডেশন গলা পর্যন্ত লাগিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন। এবার গাল, চিকবোন ও নাকে হাইলাইটার লাগিয়ে নিন। তাহলে মুখের শেপ স্পষ্ট হয় তেমনই দেখতেও সুন্দর লাগে।

একে একে হালকা আইশ্যাডো, কাজল, আইলাইনার ও মাশকারা লাগিয়ে নিন। চাইলে আইল্যাশও ব্যবহার করতে পারেন। সবশেষে ম্যাট ধাঁচের গোলাপি রঙের লিপস্টিক লাগিয়ে নিন। ব্যাস ঐশ্বরিয়ার মতো লুক রেডি।